দিনাজপুরে একদিনে ২৭৫ জনের করোনা শনাক্ত

দিনাজপুরে একদিনে ২৭৫ জনের করোনা শনাক্ত, সদরেই ১৯০

দিনাজপুর প্রতিদিন দিনাজপুরের খবর স্বাস্থ্য ও চিকিৎসা

দিনাজপুরে একদিনে ২৭৫ জনের করোনা শনাক্ত, সদরেই ১৯০

দিনাজপুরে গত ২৪ ঘণ্টায় ৭৪৪টি নমুনা পরীক্ষায় ২৭৫ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। যা আক্রান্তের হার হিসেবে ৩৭ শতাংশ।

জেলা সদর উপজেলায় করোনার ঊর্ধ্বগতি রোধে ঘোষিত লকডাউনের তৃতীয় দিন চলছে। এরপরও সংক্রমণ বাড়ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত ২৭৫ জনের মধ্যে ১৯০ জনই সদরের। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় সদরে করোনায় তিনজনের মৃত্যু হয়েছে।

এছাড়া জেলার বিরামপুরে ২৬ জন, বিরলে ১৫ জন, ফুলবাড়ীতে ১৪ জন, পার্বতীপুরে ১৩ জন, নবাবগঞ্জে পাঁচজন, হাকিমপুরে চারজন, কাহারোলে চারজন, বীরগঞ্জে দুজন ও চিরিরবন্দরে দুজন রয়েছেন।

দিনাজপুরের সিভিল সার্জন ও জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সদস্য সচিব ডা. আব্দুল কুদ্দুস এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, দিনাজপুর সদর উপজেলায় করোনায় সংক্রমণ ও মৃত্যু বৃদ্ধি পাওয়ায় সদর উপজেলায় কঠোর লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। কয়েকদিন ধরে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা সদরে বৃদ্ধি পাচ্ছে। জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সিদ্ধান্ত মোতাবেক সদর উপজেলায় প্রবেশের সব পথ বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। পথগুলোতে ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে পুলিশ ও আনসার সদস্যরা দায়িত্ব পালন করছেন।

দিনাজপুরে একদিনে ২৭৫ জনের করোনা শনাক্ত, সদরেই ১৯০

সূত্রঃ Jago News

Dinajpur Today Facebook Page and Group

দিনাজপুরে গত ২৪ ঘণ্টায় ৭৪৪টি নমুনা পরীক্ষায় ২৭৫ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। যা আক্রান্তের হার হিসেবে ৩৭ শতাংশ।

জেলা সদর উপজেলায় করোনার ঊর্ধ্বগতি রোধে ঘোষিত লকডাউনের তৃতীয় দিন চলছে। এরপরও সংক্রমণ বাড়ছে। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত ২৭৫ জনের মধ্যে ১৯০ জনই সদরের। এছাড়া গত ২৪ ঘণ্টায় সদরে করোনায় তিনজনের মৃত্যু হয়েছে।

এছাড়া জেলার বিরামপুরে ২৬ জন, বিরলে ১৫ জন, ফুলবাড়ীতে ১৪ জন, পার্বতীপুরে ১৩ জন, নবাবগঞ্জে পাঁচজন, হাকিমপুরে চারজন, কাহারোলে চারজন, বীরগঞ্জে দুজন ও চিরিরবন্দরে দুজন রয়েছেন।

দিনাজপুরের সিভিল সার্জন ও জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সদস্য সচিব ডা. আব্দুল কুদ্দুস এসব তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

তিনি জানান, দিনাজপুর সদর উপজেলায় করোনায় সংক্রমণ ও মৃত্যু বৃদ্ধি পাওয়ায় সদর উপজেলায় কঠোর লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। কয়েকদিন ধরে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা সদরে বৃদ্ধি পাচ্ছে। জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সিদ্ধান্ত মোতাবেক সদর উপজেলায় প্রবেশের সব পথ বন্ধ করে দেয়া হয়েছে। পথগুলোতে ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে পুলিশ ও আনসার সদস্যরা দায়িত্ব পালন করছেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.